বাংলা সাহিত্যের মধ্যযুগের পরিচয় দাও।

সাহিত্য রচনার এক অব্যর্থ ও অনবছিন্ন প্রক্রিয়া। পণ্ডিতরা কাজের সুবিধার জন্য ভাষার কালগত বিবর্তনকে মাপকাঠি করে তিনটি যুগ বিভাগ করেছেন। আদি যুগ, মধ্যযুগ ও আধুনিক যুগ। এই তিনটি যৌগের মধ্যে ব্যাপ্তিকাল 1201 থেকে 1760 খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত। এই মধ্যযুগ টি আবার তিনটি ভাগে ভাগ করা যায় - 
  • (1300 - 1500) খ্রি প্রাক চৈতন্য যুগ বা আদি মধ্যযুগ।
  • 1600 খ্রি হল চৈতন্য যুগ।
  • 1700 - 1800 খ্রি উত্তর চৈতন্য যুগ বা অন্ত মধ্য যুগ।

প্রায় দেড়শো থেকে দুশো বছর বাংলা সাহিত্যের নিষ্ফলা যুগ হিসেবে পরিচিত। তারপর একে একে শ্রীকৃষ্ণ কীর্তন, মঙ্গলকাব্য, বৈষ্ণব পদাবলী, অনুবাদ সাহিত্য প্রভৃতির সৃষ্টি হয়। চৈতন্যদেবের উদয়ের পর বৈষ্ণব পদাবলীর উচ্ছ্বসিত বিস্তার, জীবনী কাব্য প্রভৃতি ঐশ্বর্য রচনা। মধ্যযুগের শেষ ভাগে শাক্তপদাবলী বাউল সংগীত প্রকৃতির সৃষ্টি হয় এবং সর্বশেষ সক্ষম কবি ভারতচন্দ্র এবং তা প্রসারিত।
Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url
যেকোনো প্রশ্নের উত্তর পেতে ও অনলাইন কুইজ এ অংশগ্রহণ করতে আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে যোগ দিন। https://telegram.me/Studyquoteofficial