বাড়ির কাছে আরশিনগর কবিতা টি গীতিকবিতা কিনা আলোচনা করো ?

বাড়ির কাছে আরশিনগর কবিতা টি গীতিকবিতা কিনা আলোচনা করো ?


বাউল সাধক লালন ফকিরের বাড়ির কাছে আরশিনগর কবিতাটি বাউল সাধনায় সমৃদ্ধ নিত্যকালের এক সার্থক গীতিকবিতা।

আধুনিক ধারণা অনুযায়ী গীতি কবিতার স্বরূপ সম্পর্কে বলা যায় যে কবির সুতীব্র ব্যক্তিক অনুভূতি থেকে গীতি কবিতার জন্ম হয়। অর্থাৎ কবির Intense Personal Emotion ই হল গীতিকবিতার প্রাণ।

এই বিচারে বলা যায় আলোচ্য কবিতাটি একটি সার্থক গীতিকবিতা। কবিতার শুরুতেই কবির এক গভীর আন্তরিক পরিচয় পাওয়া যায় 'আমি একদিনও না দেখিলাম তারে'। বোঝা যায় উত্তম পুরুষের জওয়ানিতে যে আক্ষেপ ঝরে পড়েছে তাতে কবি ও তার সৃষ্টি একাকার হয়ে গেছে। এ যেন কবির আপন মনের কথা। কবির বাড়ির কাছে আরশিনগর আর সেখানে বাস করে এক পড়শী। অর্থাৎ কবির দেহের অভ্যন্তরেই মনের মানুষ বা ঈশ্বরের বাস। কিন্তু কবির কাছে সে চির অধরা অচিন পাখি, কবির একান্ত ইচ্ছা তাকে পাওয়ার। সে আর কবি একখানে থাকেন তবুও তাদের মধ্যে লক্ষ যোজন ফাঁক। তাকে পেলে হয়ত কবির যম যাতনা দূরে যেত কিন্তু সেতো চির অধরা সুতরাং সত্য হয়ে থাকল কেবল আক্ষেপ বেদনা এবং আকুতি। অর্থাৎ কবির বিশ্বাস বাঞ্ছা আক্ষেপ যেন এর কবিতার মধ্য দিয়ে রুপকে বিধৃত। সুতরাং ব্যক্তিগত উপাদানই হল কবিতাটির উপজীব্য। আর এই ব্যাক্তি উপাদান ও সনিষ্ঠতার জন্য কবিতাটি একটি সার্থক গীতিকবিতা।
Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url
যেকোনো প্রশ্নের উত্তর পেতে ও অনলাইন কুইজ এ অংশগ্রহণ করতে আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে যোগ দিন। https://telegram.me/Studyquoteofficial